শুক্রবার, ৩০ জুলাই, ২০২১,  ১৫ শ্রাবণ ১৪২৮,  Friday, July 30, 2021


দ্যা বাংলা টাইম

আপডেট : 1 week ago

Tue, Jul 20, 2021 9:33 AM

 

ছাগলের নাম ‘তৈমুর’, বিক্রি হলো সাড়ে ১২ লাখ টাকায়

Card image cap

কোরবানির জন্য একটি ছাগলের দাম উঠল ১১ লক্ষ রুপি! বাংলাদেশী মুদ্রায় ১২ লাখ ৪৬ হাজার টাকা।

ওই ছাগলটি কিনেছেন ভারতের গুজরাত রাজ্য সুরতের এক ব্যবসায়ী।  বিক্রেতা আসফাক জানিয়েছেন, ছাগলটি পাঞ্জাবের বিঠল প্রজাতির।  নাম তৈমুর।  বিঠল প্রজাতির বিশেষত্ব এদের উঁচু নাক হয় আর আকৃতিতে বিশাল।  তৈমুর যেমন উচ্চতায় ৪৬ ইঞ্চি, ওজন ১৯২ কেজি।

সুরতের সাগরামপুরার বাসিন্দা আসফাক।  তার ছাগলের ব্যবসা দীর্ঘ দিনের।  তার কথায়, ‘কুরবানির জন্য প্রতি বছরই এই সময় চড়া দামে ছাগল বিক্রি হয়।  এমনকি অনলাইনেও চলে কেনাকাটা।’ চড়া দামের কারণ অবশ্য একটাই।  অসুস্থ বা আঘাত পাওয়া ছাগলকে কোরবানি দেয়া যায় না।  স্বাভাবিকভাবেই ভালো ছাগল পেতে ভালো দামও দিতে হয় ক্রেতাকে।

আসফাকের কাছেও কাশ্মির, কাঠিয়াওয়াড়ি জেটা, কোটা, সিরোনসহ নানা প্রজাতির ছাগল ছিল এ বছর।  সবই বিক্রি হয়েছে ভাল দামেই।  তবে তাকে সবচেয়ে বেশি লাভের মুখ দেখিয়েছে পঞ্জাবের বিঠল প্রজাতির তৈমুর।  নাকের অদ্ভুত আকৃতির জন্যই ক্রেতাদের কাছে এই প্রজাতির বেশি কদর, জানিয়েছেন তিনি।

মঙ্গলবার ঈদের দিনই কোরবানি দেয়া হবে তৈমুরকে।  আসফাক জানিয়েছেন, ১১ লক্ষ রুপিতে বিক্রি হওয়া ছাগলটিকে পুরদস্তুর সাজিয়ে গুছিয়েই ক্রেতার জিম্মায় পাঠিয়েছেন তিনি।