শুক্রবার, ৩০ জুলাই, ২০২১,  ১৫ শ্রাবণ ১৪২৮,  Friday, July 30, 2021


দ্যা বাংলা টাইম

আপডেট : 1 week ago

Sat, Jul 17, 2021 2:49 AM

 

রেহানা মরিয়ম নূর: পুরস্কার পায়নি তবে প্রশংসায় ভেসেছে

Card image cap

প্রত্যাশা ছিল অনেক, তবে পুরস্কারটা হাতে আসেনি। বিশ্বময় সারা জাগানো চলচিত্র ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ কোন পুরস্কার পায়নি। কান চলচ্চিত্র উৎসবের ৭৪তম আসরে আঁ সার্তে রিগা বিভাগে দেওয়া ছয়টি পুরস্কারের একটিও আসেনি তাদের হাতে। ১৬ জুলাই রাতে উৎসবের শেষ দিনে পালে দে ফেস্টিভাল ভবনের সাল দুবুসি প্রেক্ষাগৃহে বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হয়।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম থেকে শুরু করে চলচ্চিত্র বোদ্ধা, সংবাদকর্মী ও দর্শকরা কানসৈকতে ছবিটির ভূয়সী প্রশংসা করেছিলো। কানের অফিসিয়াল সিলেকশনের ইতিহাসে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ বাংলাদেশের প্রথম ছবি। মিটু আন্দোলনের বার্তা রয়েছে ছবিটিতে। এছাড়াও ছবিটি নিয়ে আলোচনা ছিল বেশ। তবে কানের অফিসিয়াল সিলেকশনে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ ছবির স্থান পাওয়া বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের ইতিহাসে অবশ্যই সবচেয়ে বড় আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি।

কানে যাওয়া, রেড কার্পেট প্রদর্শনীতে 'রেহানা মরিয়ম নূর' কিংবা স্ট্যান্ডিং ওভেশনস্ই ছবিটির মূল বিষয় নয়। উৎসবের দ্বিতীয় দিনে ৭ জুলাই সকালে এটি প্রদর্শনের পরে যেভাবে প্রতিক্রিয়া এসেছে সেই সাথে ছবিটির নীল রঙ, চিত্রগ্রহণ, শব্দ, নতুন ঢঙের পরিচালনা এবং বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজের শিক্ষক ও মায়ের চরিত্রে বাঁধনের দারুণ অভিনয় মিলিয়ে ছবিটি যেভাবে আন্তর্জাতিকভাবে প্রশংসিত হয়েছে সেটাই বাংলাদেশের জন্য অনেক বড় পুরস্কার বলা যেতে পারে। বাংলাদেশকে বিশ্বের কাছে মাথা উঁচু করে উপস্থাপন করার চেয়ে আর কোন বড় পুরস্কার হতে পারে না। 

আঁ সার্তে রিগা বিভাগে সেরা চলচ্চিত্র হয়েছে রাশিয়ার নারী নির্মাতা কিরা কোভালেনকার ‘আনক্লেনসিং দ্য ফিস্টস’। ছবিটির গল্প এক তরুণীকে ঘিরে। নিজের পরিবারকে সে খুব ভালোবাসে। কিন্তু এই পরিবারেই তার দমবন্ধ হয়ে ওঠে। তাই পরিবার থেকে মুক্ত হওয়ার লড়াই করে মেয়েটি।

ছবিতে, কানের লাল কার্পেটে সাদ ও বাঁধনের পাশাপাশি উপস্থিত ছিলেন ছবিটির প্রযোজক জেরেমি চুয়া ও কারিগরি বিভাগে কাজ করা শিল্পীরা (কানের ফাইল ফটো)